A blog is a platform to share ideas and publish your thoughts without sticking to any limits. The owner of the blog has total freedom and flexibility to express his opinion according to his own wish. A blogging website offers an online space where you can publish articles, news, images, and hyperlinks without any stringent boundaries. Microblogging also has known as ‘Nano Blogging’. It is a recent development in the field of blogging that allows the owner to convey his message in fewer words to reach the influx of audiences Are you not sure which alternative out of blogging and microblogging is effective? Here is a comprehensive guide that will make the job easier for you: ## Length of your Content Blogging and microblogging websites have a huge difference in a number of words or characters allowed to publish the message. Being a blogger, you don’t have a limit on creating content. But in the case of microblogging, you are restricted to a few words or characters to convey your message Recommended for you:How Do You Drive Traffic to Your Blog in Free of Cost? ## Content Writing Style The writing style of blogging is quite different than that of microblogging. When you are writing a blog, you have all the luxury to write the introduction of the topic, core part and then conclude your blog with a convincing message. Blogging allows you to explain any general or technical topic in detail so that your audience doesn’t need to go anywhere to get information on their searched topic. When it comes to microblogging, you need to be extremely creative. You need to try to pass on your message to the audience with very few words. Microblogging doesn’t allow you to explain a topic in detail which means you have to summarize everything in short sentences ## Posting Time and Volume If you are running a blogging website then you can release your blog posts according to your own discretion. You can release your articles on a daily or weekly basis and you will be successful in maintaining user interaction. But in the case of microblogging, you need to release posts on an occasional basis. In fact, you have to update several posts within an hour to keep your audience updated with the latest happenings and trending topics in a specific niche. In short, a microblogging website needs to be updated with the new posts regularly; that is not the case with a blogging website আপনার মাইক্রোব্লগিং ওয়েবসাইটগুলিকে একটি নির্দিষ্ট সময়ের জন্য নিষ্ক্রিয় রাখা আপনাকে আপনার লক্ষ্যযুক্ত দর্শক হারানোর ঝুঁকিতে ফেলতে পারে কারণ তারা তথ্য পাওয়ার জন্য অন্য কিছু উত্সে স্যুইচ করবে৷ যখন পোস্টের সংখ্যার কথা আসে, তখন মাইক্রোব্লগিং আপনাকে ব্লগিংয়ের তুলনায় ভলিউম নিয়ে কাজ করতে বলে। আপনার ওয়েবসাইট বিশ্লেষণ এবং ইন্টারনেট পরিসংখ্যান ট্র্যাক রাখা নিশ্চিতভাবে আপনাকে নির্দিষ্ট সময়ের জন্য ব্যবহারকারীর ব্যস্ততার ডেটা সংগ্রহ করতে সহায়তা করবে ## ট্রেন্ড অনুসরণ করুন ভবিষ্যৎ পরিপ্রেক্ষিতের ক্ষেত্রে, ঐতিহ্যগত ব্লগিং একই থাকবে। যাইহোক, মাইক্রোব্লগিং প্রায়শই গ্রাহকদের কাছে বার্তা যোগাযোগের পদ্ধতিতে পরিবর্তন দেখতে পায়। এর কারণ হল বেশিরভাগ সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং প্ল্যাটফর্ম তাদের ইন্টারফেসে নিয়মিত পরিবর্তন আনছে এবং ফলোয়ারদের সাথে ইন্টারঅ্যাক্ট করার পদ্ধতিও প্রযুক্তি আপডেটের সাথে ভিন্ন হবে। ঠিক এখানেই মাইক্রোব্লগারদের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ; তাদের সক্রিয় হতে হবে এবং তাদের পথে আসা যেকোনো কিছুর জন্য নিজেকে প্রস্তুত রাখতে হবে ## সময়& Cost Blogging takes a significant amount of time. You need to set up things and look after several factors such as scheduling the content, adding images, videos, quotes, links and much more. On the other hand, microblogging allows you to get started very easily in simple steps. It is very similar to posting content on social networking websites such as Twitter and Facebook. You don’t need to worry about the maintenance or any administrative cost which is often the case with blogging. As a blogger, you need to spend more effort and time to publish the content as compared to microblogging ## Communicating with the Audience Microblogging allows you to do real-time communication with your audience. This makes it easy for you to deliver messages to mass customers within a quick time. It is one of the fastest modes to share information with people when compared with conventional blogging ## Creativity & Thoughts With blogging, you can customize your posts exactly the way you want by adding several creative characters to your content. On the other hand, microblogging limits you to the only single format of content; you won’t get an opportunity to display your creativity to the audience. Although microblogging offers a lot of freedom in terms of posting content, the chances of creating the appeal to the customers are quite low. With few catchy lines, they look nice but they often lack intellectual substance which most of the readers search for With blogging, you can put forward your thoughts in front of your niche audience. You can also earn money through different avenues. This is not the case with microblogging. Microblogging only gives you an opportunity to express your thoughts through a few characters; it can’t provide enough justice to the story You may like:5 Things that Maybe Driving Your Blog Traffic Away ## Topic Selection The real challenge with blogging is that each time you need to come up with a productive topic that your readers will find interesting. You need to do lots of research and gather all the facts and figures to put forward a perfect masterpiece that your users might find appealing. Running a conventional blog demands long term commitment; it may become a costly experience for people who are new to the field of blogging. This is not the case with microblogging as you get to share any news, quote or small idea in fewer lines without getting into the core of the topic. So before venturing into the concept of doing blogging, you can spend some time doing microblogging to check how your audience responds to your thoughts ## Maintenance & নমনীয়তা মাইক্রোব্লগ তৈরি করতে মাত্র কয়েক মিনিট সময় লাগে; এই ধরনের ছোট বিষয়বস্তু এক নজরে নিতে পাঠকদের জন্য মাত্র কয়েক সেকেন্ড সময় লাগে। অন্যদিকে, প্রচলিত ব্লগগুলি আপনাকে প্রচুর গবেষণা করতে বলে এবং কীওয়ার্ডের পাশাপাশি SEO অংশে আপনার ব্লগে ভিজিটরদের চালিত করার জন্য কাজ করতে বলে। ব্লগিং এর জন্য প্রয়োজনীয় মনোযোগের স্প্যানটি বেশ বেশি যা মাইক্রোব্লগিংয়ের তুলনায় এটিকে আরও চ্যালেঞ্জিং করে তোলে মাইক্রোব্লগিং আপনাকে অনেক নমনীয়তা প্রদান করে এবং আপনার যা দরকার তা হল একটি স্মার্টফোনের সাথে ইন্টারনেট সংযোগ। মাত্র কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে, আপনি আপনার অনুসরণকারীদের সাথে একটি মিথস্ক্রিয়া শুরু করতে পারেন এবং ব্যবহারকারীর ব্যস্ততা বাড়াতে পারেন। বেশ কয়েকটি মাইক্রোব্লগিং অ্যাপের আবির্ভাব মানুষের জন্য যেতে যেতে বিষয়বস্তু পোস্ট করা এবং দর্শকদের সাথে যোগাযোগ করা সহজ করে দিয়েছে কোনো সীমাবদ্ধতার সম্মুখীন না হয়ে ## আপনার আইডিয়া পরীক্ষা করা হচ্ছে মাইক্রোব্লগগুলি আপনাকে এই বিষয়ে কয়েকটি সৃজনশীল পোস্ট তৈরি করে আপনার নতুন ধারণাগুলি পরীক্ষা করতে সহায়তা করে। আপনার শ্রোতারা আপনার ধারণাগুলিকে আকর্ষণীয় মনে করতে পারে কিনা তা দেখার জন্য আপনি কোনো দ্বিধা ছাড়াই সেগুলি প্রকাশ করতে পারেন৷ যদি আপনার কোনো মাইক্রোব্লগ গ্রাহকদের কাছ থেকে প্রশংসা পায় তাহলে আপনি এটিতে একটি বিস্তারিত গল্প তৈরি করার কথা বিবেচনা করতে পারেন যার ফলে আপনার উল্লেখযোগ্য পরিমাণ সময় সাশ্রয় হয় ## কুলুঙ্গি মাইক্রোব্লগ ভ্রমণকারীদের জন্য অত্যন্ত কার্যকর যারা তাদের অনুগামীদের তারা যে গন্তব্যে ভ্রমণ করছেন সে সম্পর্কে সচেতন করতে চান। নিউজমেকাররাও মাইক্রোব্লগগুলিকে গণের নাগালের জন্য একটি আদর্শ পদ্ধতি হিসাবে খুঁজে পাচ্ছেন। কখনও কখনও, সময় এবং প্রযুক্তির সীমাবদ্ধতার কারণে ব্লগারদের জন্য দীর্ঘ গল্প লেখা কঠিন হয়ে পড়ে। এখানেই তারা মাইক্রোব্লগের সাহায্য নিতে পারে তাদের কাজ সম্পন্ন করতে এবং তাদের দর্শকদের সাম্প্রতিক ঘটনা সম্পর্কে আপডেট রাখতে এই দ্রুত পরিবর্তনশীল ওয়েব ব্রাউজিং জগতে মাইক্রোব্লগিংকে একটি প্রভাবশালী যোগাযোগ ইউনিট হিসেবে বিবেচনা করা হয়। এই উচ্চ-গতিপূর্ণ বিশ্বে, প্রত্যেকে একটি খাস্তা ফর্ম্যাটে তথ্য উপলব্ধ করতে চায় যা মোবাইলে সহজেই অ্যাক্সেসযোগ্য। ঠিক এই কারণেই মাইক্রোব্লগিং নামকরা ব্লগারদের এত বেশি মনোযোগ পাচ্ছে কারণ তারা তাদের পাঠকদের সাথে ধারাবাহিকভাবে মিথস্ক্রিয়া বজায় রাখতে চায় ## ব্লগিং + মাইক্রোব্লগিং Sometimes microblogs can be used alongside your conventional blogs. Microblogs are also used to promote your existing blog articles. Most of the bloggers prefer to tweet a small description of their articles along with links to drive traffic from various social networking platforms to their traditional blog articles. Microblogs can be used as an inspirational tool to create curiosity about a particular topic amongst the readers. This will eventually encourage them to read a complete story that provides full information You may also like:Successful Blogging isn’t just Your Opinion, it’s Scientific ## The Bottom Line Blogging and microblogging both have their unique strengths that you can harness for your own benefit. Each of the methods offers significant payback and investing in both of them is valuable in the long term. Blogging is a perfect alternative when you want to provide information in a detailed way while microblogging is an ideal way for spreading real-time data in a quicker way. So, the choice is completely yours depending upon the kind of message you want to convey to the people At times, you can even prefer doing both of them in order to get user attention in a quicker and convincing way. So, exploiting the advantages of both platforms will definitely help you to get the best out of your efforts. Eventually, it is all about maintaining the right balance as shifting completely from one platform to another will not be a sensible decision.